রেড লাইন অতিক্রম করলে ব্যবস্থা : চীন গাড়ি উৎপাদনে বিদেশি বিনিয়োগ নীতি শিথিল চীনের – বর্ণমালা টেলিভিশন

রেড লাইন অতিক্রম করলে ব্যবস্থা : চীন গাড়ি উৎপাদনে বিদেশি বিনিয়োগ নীতি শিথিল চীনের

ডেস্ক নিউজ
আপডেটঃ ৩০ ডিসেম্বর, ২০২১ | ৭:১৫ 52 ভিউ
বেইজিংয়ের এক কর্মকর্তা হুঁশিয়ারি দিয়ে বলেছেন, তাইওয়ান স্বাধীনতার দিকে আগালে চূড়ান্ত পদক্ষেপ নেবে চীন। গণতান্ত্রিকভাবে শাসিত তাইওয়ানকে নিজেদের অঞ্চল বলে দাবি করে চীন। অঞ্চলটিতে নিজেদের সার্বভৌমত্ব প্রতিষ্ঠিত করতে গত দুই বছরে কূটনৈতিক ও সামরিক চাপ জোরালো করেছে চীন। এতে ক্ষুব্ধ হয়েছে তাইপে। উদ্বেগ জানিয়েছে ওয়াশিংটন। চীনের তাইওয়ান বিষয়ক কার্যালয়ের মুখপাত্র মা জিয়াওগুয়াং বলেছেন চীন শান্তিপূর্ণভাবে তাইওয়ানের পুনরেকত্রীকরণের জন্য সর্বোচ্চ চেষ্টা চালিয়েছে। কিন্তু স্বাধীনতা নিয়ে রেড লাইন অতিক্রম করলে ব্যবস্থা নেবে। তিনি বলেন, ‘তাইওয়ানের বিচ্ছিন্নতাবাদী শক্তি যদি স্বাধীনতার উস্কানি দেয়, রেড লাইন অতিক্রমের চেষ্টা করে তাহলে আমাদের চূড়ান্ত পদক্ষেপ নিতে হবে।’ আনুষ্ঠানিক কূটনৈতিক সম্পর্ক না থাকলেও তাইওয়ানের মূল আন্তর্জাতিক সমর্থক এবং অস্ত্র সরবরাহকারী যুক্তরাষ্ট্র। চীন নিয়মিতভাবে বলে থাকে যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে তাদের সম্পর্কের ক্ষেত্রে সবচেয়ে স্পর্শকাতর ইস্যু হলো তাইওয়ান। মা জিয়াওগুয়াং বলেন, সামনের মাসগুলোতে স্বাধীনতাপন্থী শক্তির উস্কানি এবং বাইরের হস্তক্ষেপ বাড়তে পারে এবং আরও তীব্র হতে পারে। তিনি বলেন, ‘আগামী বছর তাইওয়ান উপত্যকার পরিস্থিতি আরও জটিল ও তীব্র হয়ে পড়বে।’ তাইওয়ানের ওপর চাপ বাড়াতে গত কয়েক মাসে বারবার বিমান মহড়া চালিয়েছে বেইজিং। তবে তারা হুমকি দিতে এগুলো পাঠানোর কথা অস্বীকার করেছে। রয়টার্স এখবর জানায়। অপর এক খবরে বলা হয়, গাড়ি তৈরি শিল্পে বিদেশী বিনিয়োগের ক্ষেত্রে অংশীদারত্ব সম্পর্কিত সর্বশেষ নিয়মটিও শিথিল করছে চীন সরকার। এর মাধ্যমে যাত্রীবাহী গাড়ি তৈরি খাতে আরো বেশি বিদেশী বিনিয়োগের সুযোগ স¤প্রসারিত হলো। দেশটির বিদেশী বিনিয়োগ-সংক্রান্ত নেতিবাচক তালিকার সর্বশেষ পুনর্বিবেচনা ও সংশোধনীর পর নতুন এ নিয়মের কথা জানা গেছে। আগামী ১ জানুয়ারি থেকেই নতুন নিয়ম কার্যকর হবে। মার্কিন সংবাদমাধ্যম সিএনবিসির খবরে বলা হয়েছে, আগে চীনে যে নিয়ম ছিল, সে অনুযায়ী যাত্রীবাহী গাড়ি তৈরির জন্য একটি বিদেশী বিনিয়োগকারী অংশীদারত্বের ভিত্তিতে সর্বোচ্চ দুটি প্রতিষ্ঠান গঠন করতে পারত। এখন এ নিয়মটি বদলে ফেলা হচ্ছে। চীন সরকার বলছে, বিদেশী বিনিয়োগের ক্ষেত্রে এ ধরনের কোনো শর্ত এখন আর থাকছে না। দ্য ন্যাশনাল এডিশন অব স্পেশাল অ্যাডমিনিস্ট্রেটিভ মিজার্স ফর ফরেন ইনভেস্টমেন্ট অ্যাকসেস ফর ২০২১ এবং এডিশন ফর পাইলট ফ্রি ট্রেড জোন বিদেশী বিনিয়োগকারীদের যাত্রীবাহী গাড়ি তৈরির এ অনুমতি দিচ্ছে। নতুন প্রকাশিত বিনিয়োগ-সংক্রান্ত নেতিবাচক তালিকায় যাত্রীবাহী গাড়ি রাখা হয়নি। চীনের গাড়ি নির্মাণ শিল্প খাতটি বিদেশী বিনিয়োগকারীদের জন্য উন্মুক্ত করে দেয়ার অর্থ হলো, এ খাতটিতে উচ্চপ্রযুক্তি খাতের বিনিয়োগকারীদের আকৃষ্ট করা। এর মাধ্যমে চীনে তৈরি গাড়িগুলো বিদেশে উৎপাদিত গাড়ির সঙ্গে প্রতিযোগিতায় নামতে পারবে বলে মনে করেন গবেষক ঝৌ শিজিয়ান। ধীরে ধীরে চীনে বিদেশী বিনিয়োগের যে প্রতিবন্ধকতাগুলো আছে, তা দূর করতে কাজ শুরু করেছে চীন সরকার। বিষয়টি নিয়ে চায়না প্যাসেঞ্জার কার অ্যাসোসিয়েশনের মহাসচিব চুই ডংসু বলেন, এ সিদ্ধান্ত চীনের গাড়ি তৈরির বাজারে খুব একটা প্রভাব ফেলবে না। তবে এটা ঠিক, নিয়মনীতিতে শিথিলতার কারণে এখন দেশী-বিদেশী সব প্রতিষ্ঠানের জন্যই সমান প্রতিযোগিতামূলক বাজার সৃষ্টি হলো। এখন এ খাতটি আরো প্রতিযোগিতামূলক হবে। তবে এ মুহ‚র্তে পুরনো গাড়ি নির্মাতাদের জন্য সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জ হলো নতুন জ্বালানির বাহনগুলোর সঙ্গে প্রতিযোগিতায় টিকে থাকা। চীনে এ মুহ‚র্তে বিদেশী গাড়ি নির্মাতার সংখ্যা কম। যারা আছে তাদেরও কোম্পানিতে ৫০ শতাংশের বেশি শেয়ার রাখার সুযোগ নেই। নিয়ম অনুযায়ী, একটি বিদেশী বিনিয়োগকারী প্রতিষ্ঠান কোনো চীনা প্রতিষ্ঠানের ১০ শতাংশের বেশি শেয়ারের মালিক হতে পারবে না। যুক্তরাষ্ট্রের বৈদ্যুতিক গাড়ি নির্মাতা টেসলা প্রথম বিদেশী মালিকানাধীন গাড়ি নির্মাণ প্রতিষ্ঠান হিসেবে চীনের সাংহাইতে কারখানা তৈরি করে। তবে গাড়ি শিল্পে বিদেশী বিনিয়োগের দ্বার অবারিত করলেও এখনো ৩১টি খাতে নিষেধাজ্ঞা বহাল রেখেছে বিশ্বের দ্বিতীয় বৃহত্তম অর্থনীতিটি। এগুলোর মধ্যে আছে বিশেষ ধরনের ধাতু বা রেয়ার আর্থ, চলচ্চিত্র নির্মাণ ও তামাকজাত পণ্য। এছাড়া চিকিৎসা শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানসহ বেশকিছু প্রতিষ্ঠানে বিদেশী বিনিয়োগের ক্ষেত্রে স্থানীয় অংশীদার থাকার বাধ্যবাধকতা রয়েছে। নিয়ম অনুযায়ী তারাই হবে মূল শেয়ারের মালিক। সিএনবিসি।

দৈনিক ডোনেট বাংলাদেশ সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ট্যাগ:

সংশ্লিষ্ট সংবাদ:



































শীর্ষ সংবাদ:
বেনাপোল সীমান্তে সচল পিস্তলসহ চিহ্নিত সন্ত্রাসী গ্রেফতার নির্মাণসামগ্রীর দাম চড়া, উন্নয়ন প্রকল্পে ধীরগতি কলম্বোতে কারফিউ জারি টিকে থাকার লড়াইয়ে ছক্কা হাকাতে পারবেন ইমরান খান? করোনায় আজও মৃত্যুশূন্য দেশ, শনাক্ত কমেছে ‘ততক্ষণ খেলব যতক্ষণ না আমার চেয়ে ভালো কাউকে দেখব’ এবার ইয়েমেনে পাল্টা হামলা চালাল সৌদি জোট স্বাধীনতা দিবসের র‌্যালিতে যুবলীগ নেতার মৃত্যু সাড়ে ১১ হাজার কোটি টাকার অস্ত্র রপ্তানি করেছে মোদি সরকার বঙ্গবন্ধুর ম্যুরালে ফুল দেওয়া নিয়ে আ.লীগের দুপক্ষের সংঘর্ষ, এলাকা রণক্ষেত্র ইউক্রেনকে বিপুল ক্ষেপণাস্ত্র ও মেশিনগান দিয়েছে জার্মানি পুলিশ পরিচয়ে তুলে নিয়ে নারীকে ধর্ষণ, অস্ত্রসহ গ্রেফতার ৩ ইউরো-বাংলা প্রেসক্লাবের ‘লাল-সবুজের পতাকা বিশ্বজুড়ে আনবে একতা‘-শীর্ষক সভা বঙ্গবন্ধু পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় নওগাঁর নওহাঁটায় স্থাপনের দাবিতে মানববন্ধন । ভূরুঙ্গামারীতে ব্যাপরোয়া অটোরিকশা কেরে নিল শিশুর ফাহিম এর প্রাণ ভূরুঙ্গামারী কিশোর গ‍্যাংয়ের ছুরিকাঘাতে দশম শ্রেণির এক শিক্ষার্থী আহত যশোরিয়ান ব্লাড ফাউন্ডেশন এর ৬ তম রক্তের গ্রুপ নির্ণয় ক্যাম্পেইন বেনাপোলে পৃথক অভিযানে ৫২ বোতল ফেনসিডিল সহ আটক-২ বেনাপোল স্থলপথে স্টুডেন্ট ভিসায় বাংলাদেশিদের ভারত ভ্রমন নিষেধ গেরিলা যোদ্ধা অপূর্ব