আজ ২২শে শ্রাবণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ,ইংরেজি- ৬ই আগস্ট, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ,
 
৬ই আগস্ট, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ

বিএনপি জনরোষের আতঙ্কে আছে : ওবায়দুল কাদের

বিএনপি এখন মানসিকভাবে বিপন্ন বলে অভিযোগ করে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, বিএনপি নিজেরাই জনরোষের ভয়ে আতঙ্কে আছে। তারা জনগণকে সাহস না দিয়ে জনমনে আতঙ্ক ছড়াচ্ছে। করোনার বেপরোয়া চালকের মতো তারা রাজনীতিতেও বেপরোয়া আচরণ করছে।

বৃহস্পতিবার রাজধানীর বনানী প্রকল্প অফিসে চুক্তি সই অনুষ্ঠানে নিজ বাসভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সে যুক্ত হন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী এবং বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।

বিএনপির সমালোচনা করে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, বিএনপি মানুষের দুর্যোগ ও কষ্টে গণমাধ্যমে কথামালার ধারা বর্ষণ করে যাচ্ছে। তারা করোনা আক্রান্ত মানুষের পাশে নেই। নেই কর্মহীন অসহায় মানুষের পাশে। আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা যখন করোনায় অসহায় মানুষের সহায়তায় অনন্য নজির স্থাপন করেছে তখন এই দলটি ঘরে বসে থেকে ক্লান্ত। গৃহকোণ থেকে বুলি ছোড়া তাদের কাজ।

তিনি বলেন, সরকার এবং আওয়ামী লীগ এখন বন্যার্তদের পাশে দাঁড়িয়েছে, বেসরকারি উদ্যোগে চলছে ত্রাণ তৎপরতা। বিএনপি নিজেদের দুর্গত মনে করে বিপন্ন বোধ করছে। তারা আসলেই মানসিকভাবে বিপন্ন। তারা নিজেরাই জনরোষের ভয়ে আতঙ্কে আছে।

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, মির্জা ফখরুল সাহেব বলেছেন মানুষ নাকি আতঙ্কে আছে। তিনি ঠিকই বলেছেন মানুষ বিএনপির কর্মহীন, প্রত্যাশাহীন বাক্যবাণের আতঙ্কে আছে। তারা জনগণকে সাহস না দিয়ে জনমনে আতঙ্ক ছড়াচ্ছে। নানা সীমাবদ্ধতা সত্ত্বেও এখন পর্যন্ত সরকার মানুষকে যেভাবে সহায়তা দিয়ে যাচ্ছে বিএনপি তা মেনে নিতে পারছে না। প্রতিহিংসায় জ্বলছে। তারা প্রতিহিংসার আতঙ্কে আছে। পুড়ছে আত্মদহনে। জনগণের পাশে না থাকলে একটি রাজনৈতিক দল এভাবে জনবিচ্ছিন্ন ও অপ্রাসঙ্গিক হয়ে পড়ে।

তিনি বলেন, জাতীয় স্বার্থে আমি বিরোধী দলসহ সবাইকে সরকারের গঠনমূলক সমালোচনা করার জন্য আহ্বান জানাচ্ছি। ভুল হলে তা শুধরে দেওয়ার পরামর্শ আপনারা দিতে পারেন- এটা আমাদের প্রত্যাশা। গঠনমূলক যেকোনো সমালোচনাকে সরকার স্বাগত জানায়। সম্প্রতি ফেসবুকে দেশে-বিদেশে বিরোধী দলের কেউ কেউ দেশের বিরুদ্ধে যে অপপ্রচার চালাচ্ছে তা মোটেও যুক্তিসঙ্গত নয়। সরকারের সমালোচনা করতে গিয়ে দেশের ক্ষতি ও ভাবমূর্তি নষ্ট না করার জন্য আমি আহ্বান জানাচ্ছি।

চলমান বন্যায় সরকারের পদক্ষেপ সম্পর্কে ওবায়দুল কাদের বলেন, বন্যাদুর্গত এলাকার মানুষের সহায়তায় প্রয়োজনীয় সব কিছু নিয়ে এগিয়ে যেতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দুর্যোগ ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়কে দিকনির্দেশনা দিয়েছেন। দুর্গত মানুষকে সরিয়ে নেয়া হচ্ছে আশ্রয়কেন্দ্রে। খাবারসহ প্রয়োজনীয় সহযোগিতা দেয়া হচ্ছে।

তিনি বলেন, আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীকে দুর্গত মানুষের পাশে থাকতে প্রধানমন্ত্রী আহ্বান জানিয়েছেন। দুর্গত মানুষদের রান্না করা খাবার সরবরাহে প্রশাসনকে সহযোগিতা করে আসছে আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা। বন্যায় কৃষিখাতে ক্ষতি পুষিয়ে নিতে গুচ্ছ পরিকল্পনা নেয়া হয়েছে। আমি বন্যাদুর্গত মানুষদের মনে সাহস রাখার আহ্বান জানাচ্ছি। আপনাদের পাশে রয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। আপনারা কোনো অবস্থায় মনোবল হারাবেন না। আল্লাহ আমাদের সহায় আছেন। নেত্রী আমাদের পাশে আছেন।

0 Reviews

Write a Review

Test Admin

Read Previous

অচল ঢাকা সচলের দাবিতে কাল বাসদের মানববন্ধন

Read Next

রাজনৈতিক দলে ৩৩ ভাগ নারী নেতৃত্ব বাতিলে আরপিও সংশোধনীর প্রতিবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *