ঢাকা, Sunday 26 September 2021

পিআইডি এর নিয়ম অনুসারে আবেদিত

বিএনপির মধ্যেই আন্দোলন শুরু হয়ে গেছে ॥ তথ্যমন্ত্রী

প্রকাশিত : 10:55 AM, 12 October 2020 Monday
61 বার পঠিত

| ডোনেট বিডি নিউজ ডেস্কঃ |

তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বিএনপির আন্দোলনের হুমকের জবাবে বলেছেন, বিএনপি যখন সরকারের বিরুদ্ধে আন্দোলনের কথা বলছে, তখন তাদের দলের মধ্যে আন্দোলন শুরু হয়ে গেছে। রবিবার জাতীয় প্রেসক্লাবে চট্টগ্রাম বিভাগ সাংবাদিক ফোরাম আয়োজিত করোনাকালীন মৃত্যুবরণকারী চট্টগ্রাম বিভাগের ছয় সাংবাদিকের স্মরণে আয়োজিত স্মরণ সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে রাখতে গিয়ে আওয়ামী লীগের এই যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এসব কথা বলেন।

তথ্যমন্ত্রী বলেন, যারা নিজেদের সামলাতে পারে না, যারা নিজেদের কর্মীর কাছে অপ্রিয়- তারা দেশের মানুষের কাছে কিভাবে প্রিয় হবে? তাদের এ সমস্ত কথা ফাঁকা বুলি ছাড়া আর কিছুই নয়। আমরা দেখতে পাচ্ছি, বিএনপির মধ্যেই আন্দোলন শুরু হয়ে গেছে। মির্জা ফখরুল

ইসলাম আলমগীরের বাসায় পচা ডিম ছুড়েছে তাদের নেতাকর্মী। রিজভী আহমেদ কুড়িগ্রাম মিটিং করতে গেছে, সেখানে দুই পক্ষ মারামারি করে মিটিং পন্ড করে দিয়েছে। যারা নিজেদের ঘর সামলাতে পারে না, তাদের আন্দোলনের সমস্ত কথাই ফাঁকা বুলি।

‘মনোনয়ন বাণিজ্যের’ কারণেই মির্জা ফখরুলের বাসায় ঢিল-ডিম ছোড়ার ঘটনা হতে পারে বলেও মনে করেন হাছান মাহমুদ। তিনি বলেন, গত নির্বাচনে তিন শ’ আসনে নয় শ’ মনোনয়ন দিয়েছে বিএনপি। এটা বাংলাদেশের ইতিহাসে কখনও ঘটেনি, ভবিষ্যতেও ঘটবে কিনা সন্দেহ আছে। পত্র-পত্রিকার মাধ্যমে জানতে পেরেছি, প্রথমে যে টাকা দিয়েছে তাকে মনোনয়ন দেয়া হয়েছিল। পরে আরেকজন বেশি দেয়ায় তাকে মনোনয়ন দেয়া হয়েছে। এবার উপ-নির্বাচনেও নিশ্চয়

এ ধরনের ঘটনা ঘটেছে, যার জন্য মনোনয়ন ও পদবঞ্চিতরা তাদের ওপর হামলা চালিয়েছে। মির্জা ফখরুল সাহেব আরও বলেছেন, সরকারকে আর কোন সময় দেয়া হবে না। কিন্তু সরকারকে সময় দেয়ার মালিক হচ্ছে জনগণ। বিএনপির মহাসচিব কোনদিন সময় দিতে চাননি, কিন্তু জনগণ পর পর তিনবার জননেত্রী শেখ হাসিনাকে সময় দিয়েছে এবং প্রায় ১২ বছর ধরে প্রধানমন্ত্রী ক্ষমতায় আছেন।

বিএনপিকে পরামর্শ দিয়ে তিনি বলেন, ‘আগে নিজের দলটা গোছান, নিজেদের কর্মীর মধ্যে যে বিশৃঙ্খলা-বিক্ষোভ সেটি আগে সামলান।’ চট্টগ্রাম বিভাগ সাংবাদিক ফোরামের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মোস্তফা কামালের সভাপতিত্বে এবং মহাসচিব শাহীন উল ইসলাম চৌধুরীর সঞ্চালনায় প্রধানমন্ত্রীর সাবেক তথ্য উপদেষ্টা ইকবাল সোবহান চৌধুরী,

জাতীয় প্রেসক্লাবের সভাপতি সাইফুল আলম, সাধারণ সম্পাদক ফরিদা ইয়াসমীন, বিএফইউজের মহাসচিব শাবান মাহমুদ, সাবেক মহাসচিব আবদুল জলিল ভুঁইয়াসহ ছয় প্রয়াত জ্যেষ্ঠ সাংবাদিকদের পরিবারের সদস্যরা সভায় অংশ নেন।

শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়। আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি ডোনেট বাংলাদেশ'কে জানাতে ই-মেইল করুন- donetbd2010@gmail.com আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।

ডোনেট বাংলাদেশ'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

© 2021 সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। ডোনেট বাংলাদেশ | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বে-আইনি, ডেভোলপ ও ডিজাইন: DONET IT