নিত্যপণ্যের বাড়তি দাম, প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে অ্যাকশনে নামছে প্রশাসন – বর্ণমালা টেলিভিশন

নিত্যপণ্যের বাড়তি দাম, প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে অ্যাকশনে নামছে প্রশাসন

ডেস্ক নিউজ
আপডেটঃ ২ মার্চ, ২০২২ | ১০:১০ 60 ভিউ
ভোজ্যতেল মধ্যস্বত্বভোগীরা অবৈধ মজুদ করছে। বেশি মুনাফার আশায় তেলের বোতল কেটে লুজ হিসেবে খোলা বাজারে বিক্রি করা হচ্ছে। অন্যান্য পণ্যের বাজারে অসাধু ব্যবসায়ীরা নানা কৌশল করছে। ফলে সরকারের নির্ধারিত দামে ভোজ্যতেলসহ অন্যান্য পণ্য বেশি মূল্যে বিক্রি হচ্ছে। রোজার আগে নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের বাড়তি দাম নেওয়া ঠেকাতে অসাধু ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে ‘অ্যাকশনে’ নামার ঘোষণা দিয়েছেন টিপু মুনশি। বুধবার সাংবাদিকদের এমন তথ্য জানালেন বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি। পাশাপাশি অসাধু ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নিতে সরকারের এজেন্সি, জেলা প্রশাসক ও বাজার মনিটরিং টিমগুলোকে নির্দেশ দিয়েছেন তিনি। আসন্ন পবিত্র রমজান উপলক্ষে পণ্যের মূল্য, আমদানি ও মজুদ পরিস্থিতি নিয়ে বাণিজ্যমন্ত্রী বৈঠক করেন সরকারের সংশ্লিষ্ট সংস্থা, এজেন্সি ও ব্যবসায়ীদের সঙ্গে। দুপুর আড়াইটা থেকে বিকাল ৫টা পর্যন্ত মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে এ বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। বৈঠকে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে আগামী ৩১ মে থেকে সয়াবিন এবং ৩১ ডিসেম্বর পামঅয়েল তেল বাজারে খোলা বিক্রি নিষিদ্ধ। এটি বাস্তবায়নে বাণিজ্য ও শিল্প মন্ত্রণালয় যৌথভাবে কাজ করছে। বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের ব্রিফিংয়ে বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, আমি আজকে ভোক্তা অধিকার অধিদপ্তর, টিসিবি, প্রতিযোগিতা কমিশন, সরকারের এজেন্সিগুলোকে ডেকেছি। ব্যবসায়ীরা যাতে পণ্যের যৌক্তিক মূল্য মেনটেইন হয় এবং কেউ যাতে পণ্যের বাজারে কোনো খারাপ প্র্যাকটিস না করে এ নির্দেশ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। আমি প্রধানমন্ত্রীর এ নির্দেশ পৌঁছে দিয়েছি। ভোগ্যপণ্যের বাজারে কোনো কালো হাতের প্রভাব বিস্তার করতে দেওয়া হবে না। কোনোভাবে অসাধু ব্যবসায়ীদের বিচরণ করতে দেওয়া হবে না। এ জন্য যতটুকু যেত হয় যাব এবং যত শক্ত হওয়া দরকার সেটি করা হবে। ইতোমধ্যে কয়েকটি পণ্যের ক্ষেত্রে অসাধু ব্যবসায়ীর কৌশল ধরা পড়েছে। বাণিজ্যমন্ত্রী আরও বলেন, আন্তর্জাতিক বাজারের মূল্য পরিস্থিতি দেখে বাংলাদেশ ট্যারিফ কমিশন পণ্যের মূল্য ও মুনাফার হার বের করে। কিন্তু ওই রিপোর্টে দেখা যাচ্ছে, বর্তমান দেশের বাজারে পণ্যের মূল্য গড়মিল পাওয়া গেছে। অনেক ক্ষেত্রে বেশি মূল্যে বিক্রি করা হচ্ছে। বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, প্রতিটি জেলা প্রশাসকদের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে অসাধু ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া জন্য। পাশাপাশি সরকারের এজেন্সি ডিজিএফআই, এনএসআইকে বলা হয়েছে প্রশাসনিক ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য। সরকার এ বিষয়ে কঠোর অবস্থানে রয়েছে। সরকার ব্যবসায়ীদের সুবিধা দেবে, কিন্তু এর মানে তা নয়; ব্যবসায়ীরা নিজেদের ইচ্ছামতো সবকিছু করবে। তিনি আরও বলেন, এখন থেকে আন্তর্জাতিক বাজার মূল্য ও দেশি মূল্য যৌক্তিকতা তুলে প্রতি মাসে তথ্য প্রকাশ করা হবে বাণিজ্য মন্ত্রণালয় থেকে। এতে কোন পণ্যের দাম বেশি সহজে সবাই ধরতে পারবে। গণমাধ্যমের উদ্দেশ্যে বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, আপনারা বাজারে এবং সাধারণ মানুষকে বলেন- সরকার নিত্যপণ্যের ব্যাপারে কঠোর অবস্থানে আছে। অসাধু ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে সব ধরনের ব্যবস্থা নেওয়া হবে। আগামী এক মাস পর রোজা শুরু হচ্ছে উল্লেখ করে মন্ত্রী বলেন, টিসিবির যে সক্ষমতা আছে তার চেয়ে চারগুণ বেশি সক্ষমতা নিয়ে বাজারে আসছে। সরকার কার্ড বিতরণ করে টিসিবির মাধ্যমে সারা দেশে এক কোটি মানুষের কাছে সাশ্রয়ী মূল্যে চিনি, ভোজ্যতেল, মশুরডাল, পেঁয়াজ, ছোলা বিক্রি করবে। এতে করে দেশের প্রায় পাঁচ কোটি মানুষ উপকৃত হবেন। আমদানিকৃত পণ্য যাতে আন্তর্জাতিক বাজারের সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে যৌক্তিক মূলে বিক্রয় হয়, তা নিশ্চিত করা হচ্ছে। এ বিষয়ে সরকার কঠোর অবস্থানে রয়েছে। ভোক্তাসহ সংশ্লিষ্ট সবাইকে এ বিষয়ে সতর্ক থাকতে হবে। মানুষকে সতর্ক-সচেতন করতে দেশের প্রচার মাধ্যমকেও দায়িত্ব পালন করতে হবে। আন্তর্জাতিক বাজারে আজকে দাম বাড়লে আজই ব্যবসায়ীরা দেশের বাজারে কার্যকর করছে, সরকারের কাছে একটি চিঠি দিয়ে দাম বাড়ানোর প্রস্তাব করছে, সেটি কার্যকর করা না হলে ব্যবসায়ীরা নিজেরাই কার্যকর করেন। দেশ কি ব্যবসায়ীরা চালাচ্ছে- এমন প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী বলেন, এসব কাজ ব্যবসায়ীরা করছে না, কিছু অসাধু ব্যবসায়ীরা করছে। সরকার অবশ্য বিষয়টি দেখছে এবং প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিচ্ছে। অসাধু ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে যৌথভাবে অভিযান শুরু করবেন কি না- জানতে চাইলে তিনি বলেন, পৃথকভাবে এবং প্রয়োজনে যৌথভাবে সব ধরনের অভিযান বাজারে চালানো হবে। বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব তপন কান্তি ঘোষের সভাপতিত্বে সভায় বাংলাদেশ কম্পিটিশন কমিশনের চেয়ারপারসন মো. মফিজুল ইসলাম, বাংলাদেশ ট্রেড অ্যান্ড টেরিফ কমিশনের চেয়ারম্যান (সচিব) মো. আফজাল হোসেন উপস্থিত ছিলেন। এ ছাড়া জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের সদস্য মো. মাসুদ সাদিক, এফবিসিসিআই’র প্রেসিডেন্ট জসিম উদ্দিন, টিসিবির চেয়ারম্যান ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মো. আরিফুল হাসান, বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব (আইআইটি) এএইচএম সফিকুজ্জামান উপস্থিত ছিলেন।

দৈনিক ডোনেট বাংলাদেশ সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ট্যাগ:

সংশ্লিষ্ট সংবাদ:



































শীর্ষ সংবাদ:
বেনাপোল সীমান্তে সচল পিস্তলসহ চিহ্নিত সন্ত্রাসী গ্রেফতার নির্মাণসামগ্রীর দাম চড়া, উন্নয়ন প্রকল্পে ধীরগতি কলম্বোতে কারফিউ জারি টিকে থাকার লড়াইয়ে ছক্কা হাকাতে পারবেন ইমরান খান? করোনায় আজও মৃত্যুশূন্য দেশ, শনাক্ত কমেছে ‘ততক্ষণ খেলব যতক্ষণ না আমার চেয়ে ভালো কাউকে দেখব’ এবার ইয়েমেনে পাল্টা হামলা চালাল সৌদি জোট স্বাধীনতা দিবসের র‌্যালিতে যুবলীগ নেতার মৃত্যু সাড়ে ১১ হাজার কোটি টাকার অস্ত্র রপ্তানি করেছে মোদি সরকার বঙ্গবন্ধুর ম্যুরালে ফুল দেওয়া নিয়ে আ.লীগের দুপক্ষের সংঘর্ষ, এলাকা রণক্ষেত্র ইউক্রেনকে বিপুল ক্ষেপণাস্ত্র ও মেশিনগান দিয়েছে জার্মানি পুলিশ পরিচয়ে তুলে নিয়ে নারীকে ধর্ষণ, অস্ত্রসহ গ্রেফতার ৩ ইউরো-বাংলা প্রেসক্লাবের ‘লাল-সবুজের পতাকা বিশ্বজুড়ে আনবে একতা‘-শীর্ষক সভা বঙ্গবন্ধু পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় নওগাঁর নওহাঁটায় স্থাপনের দাবিতে মানববন্ধন । ভূরুঙ্গামারীতে ব্যাপরোয়া অটোরিকশা কেরে নিল শিশুর ফাহিম এর প্রাণ ভূরুঙ্গামারী কিশোর গ‍্যাংয়ের ছুরিকাঘাতে দশম শ্রেণির এক শিক্ষার্থী আহত যশোরিয়ান ব্লাড ফাউন্ডেশন এর ৬ তম রক্তের গ্রুপ নির্ণয় ক্যাম্পেইন বেনাপোলে পৃথক অভিযানে ৫২ বোতল ফেনসিডিল সহ আটক-২ বেনাপোল স্থলপথে স্টুডেন্ট ভিসায় বাংলাদেশিদের ভারত ভ্রমন নিষেধ গেরিলা যোদ্ধা অপূর্ব