ঢাকা, Thursday 23 September 2021

পিআইডি এর নিয়ম অনুসারে আবেদিত

ঋণ সহায়তা দিতে চায় আন্তর্জাতিক সংস্থা গ্লোবাল মাইডাস

প্রকাশিত : 05:56 PM, 26 September 2020 Saturday
164 বার পঠিত

রাছেল রানা | বগুডা

বাংলাদেশের চলমান উন্নয়ন প্রকল্পে ঋণ সহায়তা দিতে আগ্রহ প্রকাশ করেছে আন্তর্জাতিক ঋণদাতা সংস্থা গ্লোবাল মাইডাস। এছাড়া প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাস মোকাবেলায় কোন প্রকল্প গ্রহণ করা হলে সেখানেও ঋণ দিতে চায় সংস্থাটি। সম্প্রতি গ্লোবাল মাইডাস গ্রুপের চেয়ারম্যান ইনডার প্রিট সিংহ এ সংক্রান্ত প্রস্তাব পাঠিয়েছেন অর্থ সচিব আবদুর রউফ তালুকদার ও অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগকে (ইআরডি)। প্রস্তাবটি গুরুত্ব সহকারে নিয়েছে সরকার।

জানা গেছে, চলতি ২০২০-২১ অর্থবছরের বাজেটে ২ লাখ ৫ হাজার কোটি টাকার বার্ষিক উন্নয়ন কর্মসূচী(এডিপি) নির্ধারণ করা হয়েছে। নতুন চ্যালেঞ্জ করোনা মোকাবেলায় বাজেটে কৃষি ও স্বাস্থ্যখাতে বড় প্রকল্প গ্রহণ করার নিদের্শনা দিয়েছে প্রধানমন্ত্রী কার্যালয়। এলক্ষ্যে এবারের সর্বকালের রেকর্ড ৫

লাখ ৬৮ হাজার কোটি টাকার বাজেট ঘোষণা করেন অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল। বড় অঙ্কের এই বাজেট বাস্তবায়নে ঘাটতি নির্ধারণ করা হয়েছে ১ লাখ ৯০ হাজার কোটি টাকা। এই ঘাটতি মেটাতে বিশ্ব্যাংক গ্রুপ, এডিবি, আইডিবি, জাইকাসহ বিভিন্ন দাতা সংস্থার কাছে বাজেট সহায়তা চাওয়া হয়। এ পরিস্থিতি গ্লোবাল মাইডাস দেশের মেগা প্রকল্প বাস্তবায়নে ঋণ সহায়তা দিতে চাচ্ছে।

এ প্রসঙ্গে অর্থ মন্ত্রণালয়ের ঊর্ধ্বতন এক কর্মকর্ত জনকণ্ঠকে বলেন, গ্লোবাল মাইডাস নানা প্রকল্পে বড় অঙ্কের ঋণ দিতে চায়। সংস্থাটির পক্ষ থেকে এ সংক্রান্ত একটা চিঠি দেয়া হয়েছে। এটা ইআরডিতে পাঠানো হয়েছে। তারা বিষয়টি নিয়ে কাজ করবেন। অপর দিকে ইআরডির

এশীয়ান ডেস্কের ঊর্ধ্বতন এক কর্মকর্তা এ চিঠি প্রাপ্তির কথা স্বীকার জানান, বিষয়টি সরকারের বিবেচনাধীন আছে। অর্থ সচিবকে পাঠানো চিঠিতে গ্লোবাল মাইডাস বলেছে, বড় ধরনের গ্রিন ফিল্ড প্রকল্প, রেলওয়ে, মেট্রোরেল, বিমানবন্দর উন্নয়ন, বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চল স্থাপন, বিদ্যুৎ কেন্দ্র নির্মাণ ও আইটি পার্কের মতো বড় প্রকল্পে ঋণ দিতে আগ্রহী গ্লোবাল মাইডাস। বিভিন্ন ধরনের ঋণের পাশাপাশি সরকারী ও বেসরকারি খাতে বন্ডে বিনিয়োগও করেছে গ্লোবাল মাইডাস। সংস্থাটি সরকারী-বেসরকারি অংশীদারিত্বের প্রকল্পে (পিপিপি) আগ্রহের কথাও জানিয়েছে।

ঋণ দেয়ার আগ্রহ জানিয়ে গ্লোবাল মাইডাসের পক্ষ থেকে সরকারের সঙ্গে আলোচনা করার প্রস্তাব দিয়েছে। চিঠিতে আরও বলা হয়, কর্পোরেট বন্ড, সভরেইন বন্ড, ডেভেলপমেন্ট বন্ডসহ যেকোনো প্রাতিষ্ঠানিক

খাতে ঋণ কর্মসূচি দিয়ে থাকে এ সংস্থা। এদিকে, গ্লোবাল মাইডাসের বাংলাদেশের প্রধান শেখ সরওয়ার বলেন, সরকারের বাজেট ঘাটতি ১ লাখ ৯০ হাজার কোটি টাকা। এই ঘাটতি বাজেট সমতুল্য ঋণ দিতে আগ্রহী আমরা। বর্তমান এ দেশের অর্থ সংগ্রহের জন্য বিভিন্ন আন্তর্জাতিক সংস্থার খোঁজ নেয়া হচ্ছে। আমরা বড় অঙ্কে ঋণ দিতে আগ্রহী। সুদের হার নির্ধারণ করা হবে আলোচনার ভিত্তিতে। তবে সেটি হবে আন্তর্জাতিক রেট অনুযায়ী। নেপাল, সিঙ্গাপুর, ভারতসহ কয়েকটি দেশে বড় অঙ্কের ঋণ দিয়েছে গ্লোবাল মাইডাস। এখন বাংলাদেশে স্বল্প সুদে ঋণ দিতে এগিয়ে আসছে এ সংস্থা।

জানা গেছে, করোনাভাইরাসের কারণে সরকারের নানাভাবে ব্যয় বেড়েছে। অপর দিকে রাজস্ব ঘাটতির

কারণে অর্থ সংকট তৈরি হয়েছে। যে কারণে সরকার কৃচ্ছ সাধনের পথে হাঁটছে। অর্থ সংকটের কারণে প্রায় চারশ’ নিম্নমানের প্রকল্পে অর্থায়ন বন্ধ রাখা হয়েছে। শুধু বেতন-ভাতা ও পরিবহন ব্যয় দিয়ে এসব প্রকল্প টিকিয়ে রাখা হচ্ছে। এ অবস্থায় গ্লোবাল মাইডাসের বড় ঋণ প্রস্তাবকে গুরুত্ব সহকারে বিবেচনা করার জন্য গ্লোবাল মাইডাসের পক্ষ থেকে জানানো হয়। এছাড়া গ্লোবাল মাইডাসের প্রস্তাবিত ঋণের গ্রেস পিরিয়ড প্রকল্পভেদে এক থেকে দুই বছর। ২৫ বছরের মধ্যে পুরো ঋণ শোধ করতে হবে। এ ঋণের বিপরীতে সর্বোচ্চ দুই শতাংশের কম সুদ পরিশোধ করতে হবে। যা এশীয় উন্নয়ন ব্যাংক (এডিবি) ও ইন্টারন্যাশনাল ফাইন্যান্স কর্পোরেশনসহ (আইএফসি) আরও কয়েকটি

সংস্থার তুলনায় কম হবে।

শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়। আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি ডোনেট বাংলাদেশ'কে জানাতে ই-মেইল করুন- donetbd2010@gmail.com আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।

ডোনেট বাংলাদেশ'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

© 2021 সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। ডোনেট বাংলাদেশ | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বে-আইনি, ডেভোলপ ও ডিজাইন: DONET IT